Sunday, December 2, 2018

রাজবাড়ীর দুটি আসনে দুই প্রার্থীর মনোনয়ন পত্র বাতিল বৈধ ১৬ জন



রাজবাড়ী প্রতিনিধি ঃ একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে রাজবাড়ীতে রির্টানিং অফিসার ও জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে মনোনয়ন পত্র বাছাই কার্যক্রম সমাপ্ত হয়েছে।
রবিবার সকালে রির্টানিং অফিসার জেলা প্রশাসক মোঃ শওকত আলীর সভাপতিত্বে সম্মেলন কক্ষে মনোনয়নয়ন বাছাই কার্যক্রম শুরু হয়। এ সময় রাজবাড়ীর জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মোঃ হাবিবুর রহমান,অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক সার্বিক মোঃ আশেক হাসান, সিনিয়ার সহকারী পুলিশ সুপার মোঃ ফজলুল করিমসহ ১৮ জন প্রার্থী উপস্থিত ছিলেন।
প্রথমে রাজবাড়ী-১ আসনের মনোনয়ন পত্র বাছাই শুরু করেন রিটার্নিং কর্মকর্তা এ সময় মনোনয়নপত্রে ভোটার নম্বর ও আয় বিবরনী না থাকায় ন্যাশনাল পিপলস পার্টির প্রার্থী নাজমুল হক খানের মনোনয়ন বাতিল করা হয়।
এছাড়া রাজবাড়ী-১ আসনের সংসদ সদস্য ও আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী আলহাজ্ব কাজী কেরামত আলী। বিএনপি মনোনীত প্রার্থী আলী নেওয়াজ মাহমুদ খৈয়ম ও এ্যাডভোকেট আসলাম মিয়া। কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের প্রার্থী মোঃ জুয়েল রানা। ইসলামি আন্দোলন বাংলাদেশের প্রার্থী মোঃ জাহাঙ্গীর আলম খান ( জাহিদ হাসান)। জাতীয় পার্টির মনোনীত প্রার্থী আক্তারউজ্জামান হাসানের মনোনয়ন পত্র বৈধ বলে ঘোষনা করেন জেলা প্রশাসক।
এরপর বেলা বারোটার সময় শুরু হয় রাজবাড়ী-২ আসনের মনোনয়ন যাচাই বাচাই কার্যক্রম। এ সময় স্বতন্ত্র প্রার্থী মোঃ নুরুদ্দিন মিয়া মনোনয়ন পত্রে শতকরা এক ভাগের কম ভোটারের স্বাক্ষর থাকার তার মনোনয়নপত্র বাতিল হয়।
এবং রাজবাড়ী-২ আসনের বর্তমান সংসদ সদস্য ও আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী জিল্লুল হাকীম। বিএনপি মনোনীত প্রার্থী নাসিরুল হক সাবু, হারুন অর রশিদ হারুন ও লায়ন আব্দুর রাজ্জাক মিয়া। জাতীয় পার্টির প্রার্থী এ্যাডভোকেট এবিএম নুরুল ইসলাম। বাংলাদেশ সাংস্কৃতিক মুক্তিজোটের প্রার্থী মোঃ নাজমুল হাসান। গন ফোরামের প্রার্থী ইমামুজ্জামান চৌধুরী। ইসলামি আন্দোলন বাংলাদেশের প্রার্থী নুর মহম্মদ ভুইয়া। জাসদের প্রার্থী সুশান্ত কুমার সরকার। জাসদ ( রব ) প্রার্থী খন্দকার ছদরুল হাসানের মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষনা করেন রির্টানিং কর্মকর্তা।
এর আগে রাজবাড়ীর দুটি সংসদীয় আসনে আওয়ামী লীগ বিএনপি জাতীয় পার্টিসহ মোট ১৮ জন প্রার্থী তাদের মনোনয়ন প্রত্র দাখিল করেন। এর মধ্যে ১৬ জন প্রার্থীর মনোনয়ন বৈধ হয়।