Saturday, January 19, 2019

ধর্ষিতাকে গুলি করে খুন ধর্ষকের

জেল থেকে বেরিয়েই ধর্ষিতাকে গুলি করে খুন ধর্ষকের
প্রেমিকাকে ধর্ষণের অভিযোগে অভিযুক্ত হয়ে বহুদিন জেল কেটে জামিনে মুক্তিও পান। এরপর এমন এক কাণ্ড ঘটালেন যার জন্য প্রস্তুত ছিল না কেউ।
জেল থেকে বেরিয়েই অভিযোগকারী তরুণীকে খুন করে বসেন অভিযুক্ত যুবক। ভারতের হরিয়ানার গুরুগ্রামের খুশবু চক এলাকার এ ঘটনায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে।
জানা যায়, জামিনে মুক্তি পেয়ে ধর্ষণে অভিযুক্ত সন্দীপ আধানা অভিযোগকারী তরুণীর সঙ্গে নতুন করে সম্পর্ক তৈরি করে। তারপরই কফি খাওয়ার আমন্ত্রণ জানিয়ে গুলি চালিয়ে খুন করে তাকে।
ভারতীয় একটি গণমাধ্যমের খবরে বলা হয়, গুরুগ্রামের একটি নাইটক্লাবের বাউন্সার সন্দীপের সঙ্গে লিভ-ইন সম্পর্কে ছিল ওই ক্লাবের এক নৃত্যশিল্পীর। ২০১৭ সালের নভেম্বরে সন্দীপের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ দায়ের করে ওই তরুণী।
অভিযোগের ভিত্তিতে সন্দীপকে গ্রেফতার করা হলে কিছুদিন পর জামিনে মুক্তি পান তিনি। জেল থেকে বেরিয়ে ফের তরুণীর সঙ্গে সম্পর্ক স্থাপন করে সন্দীপ। তরুণীর কাছে ক্ষমা চেয়ে সব মিটমাট করে নিলেও আলাদা থাকতেন তারা।
গত বৃহস্পতিবার রাতে সন্দীপ ও তার এক বন্ধু ওই তরুণীকে কফি খাওয়ার নাম করে ডেকে নিয়ে যায়। তরুণীর সঙ্গে তার এক বোন ছিল। খুশবু চকের কাছে আচমকাই গাড়ি থামায় সন্দীপ। সবাই গাড়ি থেকে নামলে কেউ কিছু বুঝে ওঠার আগেই পিস্তল বের করে গুলি চালিয়ে দেন তিনি।
পরে গাড়ি নিয়ে সন্দীপ ও তার বন্ধু ঘটনাস্থল থেকে দ্রুত সটকে পড়ে। হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে ওই তরুণীকে মৃত ঘোষণা করেন চিকিৎসক।

source: bangladeshtoday.net